1. rashidarita21@gmail.com : bastobchitro :
রাষ্ট্রীয়ভাবে প্রতিবাদ এবং সংসদে নিন্দা প্রস্তাব গ্রহণের দাবি | Bastob Chitro24
মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪, ০৯:৪১ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
বিজেপি ৪০০ পার করলে, পাক অধিকৃত কাশ্মীর ভারতের অংশ হয়ে যাবে ডেঙ্গু নিয়ে মিথ্যাচার করছেন মেয়র তাপস: সাঈদ খোকন বাজারভিত্তিক সুদহারে হস্তক্ষেপের ইঙ্গিত বাংলাদেশ ব্যাংকের কুষ্টিয়া জেলা শিল্পকলা একাডেমী কালচারাল অফিসার সুজন রহমানের পারিবারিক সংগঠনের সন্ধান ১৩৯ উপজেলায় দলীয় প্রতীকহীন ভোট আজ সহিত্যিক মীর মোশাররফ স্কুলের প্রাচীর সংস্কার হচ্ছে অনেক কাঠখড় পুড়িয়ে। সরকারি মালিকানাধীন ২৮টি শিল্পপ্রতিষ্ঠান লোকসানে চলছে হজের ভিসায় নতুন বিধি-নিষেধ জারি গুণী শিক্ষক মোসা. আখতার বানুর অবসজনিত বিদায় অনুষ্ঠান রাজশাহী ইউনিভার্সিটি এক্স স্টুডেন্টস এসোসিয়েশনের ক্যাপ বিতরণ

রাষ্ট্রীয়ভাবে প্রতিবাদ এবং সংসদে নিন্দা প্রস্তাব গ্রহণের দাবি

ঢাকা অফিস
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৩ জুন, ২০২২

মহানবীকে কটূক্তির প্রতিবাদে বিভিন্ন স্থানে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ

মহানবী (সা.) কে নিয়ে বিজেপি নেত্রীর কটূক্তির প্রতিবাদে ছাত্রদের বিক্ষোভ অব্যাহত রয়েছে। গতকালও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস, মতিঝিল ও রামপুরা, তেঁজগাওয়ের সরকারি বিজ্ঞান কলেজ, বাংলাদেশ ব্যাংক উচ্চ বিদ্যালয়সহ কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ করেছেন। তারা ভারতের বিজেপি সরকারের মুখপাত্র নূপুর শর্মা এবং নাভিল জিন্দালের বিচারের দাবি ও বাংলাদেশ সরকারের প্রতি রাষ্ট্রীয়ভাবে ভারতকে নিন্দা জানানোর দাবি জানিয়েছে। এ সময় বক্তারা বলেন, বিশ্বের বহুদেশ ভারতের পণ্য বর্জন করেছে এবং দিল্লির সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করার হুমকি দিচ্ছে। অথচ ৯২ ভাগ মুসলমানের বাংলাদেশ সরকার নীরব দর্শকের ভুমিকায় রয়েছে। ভারতের তাবেদারী করায় আওয়ামী লীগ সরকার মহানবীকে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদ করার সাহস দেখাচ্ছে না। এমনকি সংসদে নিন্দা প্রস্তাব গ্রহণ করছে না। বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা বলেন, ভারতের মোদী সরকার এ নিয়ে ক্ষমা না চাইলে ভারতীয় পণ্য বর্জন করতে হবে।

এর আগে একই দাবিতে গত শনিবার রাজধানীর কবি নজরুল ইসলাম কলেজের ছাত্ররা বিক্ষোভ করে। রাজধানীর তিতুমীর কলেজের মূল ফটকের সামনে থেকে সাধারণ শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করেন । পরে ছাত্র সংসদের সামনে অবস্থান নিয়ে সেখান থেকে আবারও মিছিল করে। ঢাকা কলেজের ছাত্ররা বিক্ষোভ করে। এ ছাড়াও ময়মনসিংহ নটরডেম কলেজের ছাত্ররাসহ বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজের শিক্ষার্থীরা একই দাবিতে বিক্ষোভ করে।

নটরডেম কলেজ : রাজধানীর নটরডেম কলেছের শিক্ষার্থীরা মহানবীকে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল করেছে। গতকাল মতিঝিলে বিক্ষোভ মিছিলে তারা দাবি করেছে বিজেপি নেত্রীর কটুক্তির প্রতিবাদ রাষ্ট্রীয় ভাবে করতে হবে। সরকারকে ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে তলব করে তীব্র প্রতিবাদ জানাতে হবে। শুধু তাই নয় জাতীয় সংসদে এ নিয়ে নিন্দা প্রস্তাব গ্রহণ করতে হবে। বক্তারা বলেন, বিশ্বের বহুদেশ বিজেপি নেত্রীর কটুক্তির প্রতিবাদে ভারতীয় পণ্য বর্জন করছে। বাংলাদেশকে ভারতীয় পণ্য বর্জন করার ডাক দিতে হবে। বাংলাদেশ ব্যাংক উচ্চ বিদ্যালয়সহ মতিঝিলের আশপাশের কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা মহানবীকে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদ এবং জাতীয় সংসদে ভারতের বিরুদ্ধে নিন্দা প্রস্তাব উত্থাপনের দাবিতে বিক্ষোভ করেন। বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা এ সময় ভারতীয় পণ্য বর্জনের জন্য দেশবাসীর প্রতি আহবান জানান।

জানতে চাইলে ডিএমপির মতিঝিল থানার ওসি ইয়াসির আরাফাত বলেন, বিশ্ব নবী (সা.)-কে কটূক্তির প্রতিবাদে মতিঝিলে নটর ডেমের সাধারণ শিক্ষার্থীরা রাস্তা অবরোধ করে বেশ কিছুক্ষণ বিক্ষোভ করেন। ১০ থেকে ১৫ মিনিট পর বিক্ষোভ কর্মসূচি সমাপ্ত ঘোষণা করে। পরে তারা রাস্তা ছেড়ে চলে যায়।

একই দাবিতে রাজধানীর রামপুরা এলাকায়ও মিছিল করেছে শিক্ষার্থীরা। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে রামপুরা থানার ওসি মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, বিশ্ব নবী (সা.)-কে কটূক্তির প্রতিবাদে রোববার দুপুরে শিক্ষার্থীরা রামপুরা বেটার লাইফ হাসপাতালের সামনে বিক্ষোভ মিছিল বের করে। ১০ থেকে ১৫ মিনিটের মধ্যে শান্তিপূর্ণভাবে মিছিল শেষে করে শিক্ষার্থীরা চলে যায়। তবে তাদের মিছিলে পুলিশ বাঁধা দেয়নি।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় : গতকাল রোববার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের সন্ত্রাস বিরোধী রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে শিক্ষার্থীরা সম্মিলিত কণ্ঠে মুসলিমদের চিরচেনা ঐতিহ্যবাহী নাশিদ ত্বালা আল বাদরু আলাইনা গেয়ে ব্যতিক্রমী এই প্রতিবাদ জানায়। কর্মসূচিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগ, হল ও ইন্সটিটিউটের শিক্ষার্থীরা অংশ নেন। এতে অংশ নেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরাও।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামিক গানের ব্যান্ড সিলসিলা ও কলরব শিল্পীরাসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা সম্মিলিত কণ্ঠে রাসুল (সা) এর শানে নাতে রাসুল পরিবেশন করেন। অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে ‘ত্বালা’ আল বাদরু ‘আলাইনা’ গানটি ছাত্র শিক্ষক সম্মিলিত কণ্ঠে পাঠ করেন। কুজা মান কুজা, ত্রিভুবনের প্রিয় মুহাম্মদ, মাওলা ইয়া সাল্লি ওয়াসাল্লিম, রাসুলের অপমানে যদি কাঁদে না তোর মন প্রভৃতি গানে মুখরিত হয়ে ওঠে রাজু ভাস্কর্যের প্রাঙ্গণ।

কর্মসূচিতে উপস্থিত হয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের অ্যাসিসট্যান্ট প্রফেসর আরিফুল ইসলাম অপু বলেন, আমরা যে জন্য আজকে এখানে দাঁড়িয়েছি, যে মানবতার মহানায়কের জন্য, তার চরিত্রের সার্টিফিকেট স্বয়ং আল্লাহ তাআলাই দিয়েছেন। আমরা তার সম্মানার্থে এখানে দাড়িয়েছি। তাকে অপমান করার ক্ষমতা কারো নেই। যুগে যুগে যারাই তাকে অপমান করার চেষ্টা করেছে তারাই অপমানিত হয়েছে। ওনার আগেও অনেক নবী পৃথিবীতে এসেছেন এবং তাঁদেরকেও অপমানিত করার চেষ্টা করা হয়েছে। আজ নবীর প্রেমে যারা এই আয়োজন করেছে তাদের আন্তরিক ধন্যবাদ জানাই।

ফিন্যান্স বিভাগের অ্যাসিসট্যান্ট প্রফেসর মো. ইমরান হোসেন বলেন, আমাদের সর্বশ্রেষ্ঠ মহানুভব রাসুল (সা) এর চরিত্র মহান আল্লাহ নিজেই কুরআনে বলেছেন। এটা আমরা জানি এবং আল্লাহও কুরআনে নিজেই বলেছেন। বিভিন্নযুগে রাসুল (সা) কে নিয়ে আগেও এরকম হয়েছে, এখনো হছে এবং ভবিষ্যতেও হবে, এটাও কুরআনেই বলা আছে। তবে আমাদের ইমানী দায়িত্ব থেকে যতটুকু প্রতিবাদ করা দরকার আমরা তা করবো ইনশাআল্লাহ।
তিতুমীর কলেজ : মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে ভারতের দুই বিজেপি নেতার বক্তব্যের প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল করেছে রাজধানীর সরকারি তিতুমীর কলেজের শিক্ষার্থীরা। গত শনিবার তিতুমীর কলেজের মূল ফটকের সামনে থেকে সাধারণ শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করেন। পরে ছাত্র সংসদের সামনে অবস্থান নিয়ে সেখান থেকে আবারও মিছিল শুরু করেন। মিছিলটি সমাবেশের মধ্য দিয়ে শেষ হয়। বিক্ষোভ মিছিলে বাংলাদেশ থেকে সরকারিভাবে নিন্দা জানানোর দাবি জানিয়ে সমাবেশে অংশগ্রহণকারীরা বলেন, জাতীয় সংসদে যেন তাদের বিরুদ্ধে নিন্দা জানানো হয়। একইসঙ্গে ভারত সরকারকেও এই ঘটনায় ক্ষমা চাইতে হবে। এসময় তারা ভারতীয় পণ্য বয়কটেরও আহ্বান জানান।

কবি নজরুল কলেজ : মহানবীকে কটুক্তির প্রতিবাদে কবি নজরুল কলেজ শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ মিছিল করেছে। গত শনিবার শিক্ষার্থীরা কলেজের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে বিক্ষোভ মিছিল শুরু করেন। মিছিলটি সম্পূর্ণ ক্যাম্পাসে প্রদক্ষিণ করে লক্ষীবাজার, ভিক্টোরিয়া পার্ক, রায়সাহেব বাজার, তাঁতীবাজার হয়ে কলেজের প্রধান ফটকের সামনে এসে শেষ হয়। এতে কলেজের প্রায় কয়েক হাজার শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেন।

এসময় শিক্ষার্থীরা ভারতে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) ও হযরত আয়েশা (রাঃ) কে নিয়ে কটুক্তিমূলক বক্তব্যের প্রতিবাদে ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে তলব করে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে রাষ্ট্রীয়ভাবে নিন্দা জানানোর জোর দাবি জানান। তারা সংসদে এ নিয়ে নিন্দা প্রস্তাব উত্থাপনের দাবি জানান। এ সময় লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে তলব করে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে রাষ্ট্রীয়ভাবে নিন্দা জানানোর জোর দাবি জানাচ্ছি।

ঢাকা কলেজ : মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে কটূক্তির প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছেন ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থীরা। শুক্রবার বাদ জুমা ঢাকা কলেজের মসজিদের সামনে থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করেন। পরে মূল ফটকের সামনে অবস্থান নিয়ে সেখান থেকে মিরপুর রোডে আবারও মিছিল শুরু করেন। মিছিলটি সায়েন্স ল্যাবরেটরি ঘুরে নীলক্ষেত গিয়ে সমাবেশের মধ্য দিয়ে শেষ হয়। এসময় ওই এলাকায় তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়।

মিছিলে ‘ভারতীয় পণ্য, বয়কট, বয়কট’, ‘বিশ্ব নবীর অপমান, সইবে নারে মুসলমান’, ‘নূপুর শর্মার বিচার চাই’-সহ শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন সেøাগান দিতে দেখা যায়।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
প্রযুক্তি সহায়তায়: রিহোস্ট বিডি